বাজাজ মোটরসাইকেল – বাজাজ ভি ১৫ (Bajaj V15)

 

বাজাজ মোটরসাইকেল – বাজাজ ভি ১৫ (Bajaj V15)


বাজাজ অটো দুই চাকার বাজারে সবসময়ই নতুন কিছু বাজারজাতের ক্ষেত্রে বিস্ফোরণ ঘটানোর জন্য প্রথম সারিতে রয়েছে।সুতরাং এটা মোটেও কোন বিস্ময়কর বিষয় নয় যে, বাজাজ তার আনকোরা বাজাজ ১৫০সিসি ডিজাইনের বাজাজ ভি১৫ এর মাধ্যমে ১২৫সিসি প্রিমিয়াম কমিউটার এবং ১৫০সিসি এক্সিকিউটিভ মোটরসাইকেল সেগমেন্টের ফাঁক গুলোয় সেতু বন্ধনের প্রচেষ্টা চালিয়েছে।

বাজাজ ভি ‘ (Bajaj V 15) তৈরি করা হয়েছে ভারতীয় নৌবাহিনীর প্রথম বিমানবাহী রণতরীর ধাতব দিয়ে।

একাত্তরের ডিসেম্বরে বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধের চূড়ান্ত পর্যায়ে যখন মার্কিন সপ্তম নৌবহর বঙ্গোপসাগরের দিকে ধেয়ে আসছিল, তখন ভারতীয় রণতরি আইএনএস-ভিক্রান্ত সেখানে জলসীমার পাহারায় ছিল।

এর আগে থেকেই রণতরিটি চট্টগ্রাম, কক্সবাজার ও খুলনার জলসীমায় গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছিল। সেই ইতিহাস স্মরণ করেই ভিক্রান্তের কাটা অংশ দিয়ে বানানো মোটরসাইকেল ‘বাজাজ ভি১৫‘। সেটি দেশের বাজারে আনল উত্তরা মোটরস লিমিটেড।

বাজাজ ভি ১৫(Bajaj V15)-productreviewbd

বাজাজ মোটরসাইকেল শো-রুম

বাজাজ ভি১৫ এর পছন্দনীয় দিক

  • স্বতন্ত্র ডিজাইন
  • নিম্ন সীট উচ্চতা
  • শহরের রাস্তায় চলাচলের উপযোগী Torquey ইঞ্জিন

 

বাজাজের অপছন্দনীয় দিক

  • ব্যাসিক ইন্সট্রুমেন্ট ক্লাস্টার, ট্রিপমিটার নেই
  • অপেক্ষাকৃত ছোট পিলিয়ন সীট

 

স্ট্যান্ড আউট ফিচারসমুহ

  • ট্যাঙ্ক তৈরিতে (ins vikrant) স্ক্র্যাপ মেটারলের ব্যবহার দেশাত্মবোধ ফ্যাক্টর যোগ করেছে।
  • মজবুত গড়নের স্টাইলিং এবং চমৎকার রিয়ার সীট, কোল অপশন এর নান্দনিক সৌন্দর্যে আরো এক মাত্রা যোগ করেছে।

বাজাজ পালসার

ডিজাইনঃ

ফ্রন্টে বড় এবং ব্যাকে ছোট চাকার সেট আপের সাথে cruiser comfort এবং upright seating position এর চমৎকার ব্যালান্স তো আছেই। এটি butch, muscular এমনকি দেখতে নান্দনিক হওয়ার পরেও বেশ শক্ত পোক্ত।

বাইকটির ফ্রন্টে রয়েছে একটি বড় ৬০ ওয়াটের হেডল্যাম্প- এই সেগমেন্টের জন্য  বেশ শক্তিশালী ব্যাপার- সাথে উপরের কোনার দিকে আছে দুটি পাইলট লাইট এবং একটি উল্টানো ত্রিভুজ আকৃতির উইন্ডস্ক্রিন, একটি জাহাজের হুলের কথা স্মরণ করিয়ে দেয়।

হেডল্যাম্পের চারপাশের ক্রোম বাইকটিএ দিয়েছে প্রিমিয়াম টাচ একই সাথে ছোট এবং মোটা সোটা সাইড ইন্ডিগেটর ভি কে একটি শক্ত সামর্থ্য চেহারা দিয়েছে।

১৮ ইঞ্চির ফ্রন্ট হুইল এর উপর ৯০ মিলিমিটার Euro Grip টায়ার বাইকটির যোগ্যতার ইঙ্গিত প্রকাশ করে, অপরদিকে ৩৩ মিলিমিটার এর ফ্রন্ট ফরক এর muscle factor বাড়ায়।

বাজাজ মোটরসাইকেল

বড় আকারের ১৩ লিটার স্কাল্পটেড ট্যাঙ্ক এর সাথে খুবই মজবুত গড়নের flanks carries আইএনএস বিক্রান্ত দ্বারা অনুপ্রাণিত হয়ে 3D ‘V’ চিহ্নটি বহন করে। ‘V’ এর উৎপত্তি স্মরন করিয়ে দেয়ার জন্য ফুয়েল ট্যাঙ্কের ঢাকনাতেও আইএনএস বিক্রান্ত এর চিহ্নটি অঙ্কিত রয়েছে।

এর সীটটি well-contoured, এই সেগমেন্টের অন্যান্যদের মত প্যাডেড নয়, এবং এই সেগমেন্টের এই বাইকটিতেই প্রথম একটি কৌল সংযোজন করা হয়েছে এর পিলিওন সীটটি কভার করার জন্য।

সামগ্রিকভাবে, নকশাটি এতই অনন্য যে এটি মতামতকে বিভক্ত করে দেবে –আপনি এর প্রেমে পড়ে যাবেন নাকি কিছুই হবে না, অপরদিকে বাজাজ ভি কে উপেক্ষা করার কোন উপায় নেই, এবং অতি অবশ্যই এটি মাথা ঘুরিয়ে দিতে পারে।

ইঞ্জিনঃ

বাজাজ ভি চালিত হয় ১৪৯.৫সিসি, ৪-স্ট্রোক, এয়ার-কুলড ডিটিএস-আই ইঞ্জিন দ্বারা এবং ৫-স্পীড ট্রান্সমিশনের সাথে সংযোজিত হয়। যায়হোক, ডোনার বাইকের বিপরীতে, পালসার ১৫০, এই ইঞ্জিনটি কমপক্ষে সর্বোচ্চ ৭,৫০০ আরপিএম এ ১১.৭৬ বিএইচপি শক্তির সাথে ৫,৫০০ আরপিএম এ ১৩এনএম উচ্চ গতির টর্ক প্রদান করে।

ইঞ্জিনটি প্রায় ৬০ কিলোমিটার পার আওয়ার ফুয়েল ইফেসিয়েন্সি সরবরাহ করার চেষ্টা করে

। এই ব্যবহার যোগ্য শক্তি এবং অসাধারণ ফুয়েল সাশ্রয় বাইকটিকে ইতিবাচক প্রেক্ষাপটের ভেতরে রেখেছে এবং এই সেগমেন্টে পালসার যেমনটা করেছে তার চেয়েও বেশি বাইক প্রেমীদের আকর্ষণ করেছে।

ব্রেকিংঃ

স্পোর্টিং ফ্রন্টে রয়েছে একটি 240mm wave pattern disc brake এবং রিয়ারে স্ট্যান্ডার্ড এর মত ১৩০এমএম ড্রাম, বাজাজ ভি আত্মবিশ্বাস নিয়েই চলে এবং প্রয়োজনে মুহূর্তেই থেমে যেতে পারে।

এর টায়ার ব্রেকিং পাওয়ার কে রিয়ল-ওয়ার্ল্ড কন্ডিশনে পরিবর্তিত করে, এবং ভালো ভাবেই কাজটি করে। কিন্তু cushioned ride এর কারনে ব্রেক কিছুটা অস্বাভাবিক মনে হতে পারে।

বাইকটিতে বড় আয়তাকার আয়না রয়েছে ইজি ভিউ এর জন্য, দৃশ্যমানতা যেন স্পষ্ট হয় সেটা নিশ্চিত করার জন্য দুই প্রান্তেই উজ্জ্বল ল্যাম্প আছে।

যায়হোক, সমস্ত পাওয়ার প্রথম থেকেই আছে, বাইকটি নিশ্চিত ভাবেই এমন বিশাল কিছু নিয়ে আসে নি। একই সময়ে, অপেক্ষাকৃত নতুন ডিসকভার সিরিজের মত মনে হয় না, এটি যথেষ্ট প্রিমিয়াম।

বাজাজ ভি১৫ এর স্পেসিফিকেশনঃ

 

Mileage 55 Kmpl
Front Brake Disc
Rear Brake Drum
Wheel Type Alloy
Starting Kick and Self Start
Fuel Capacity 13 Ltrs
Engine Type Single Cylinder, 4 Stroke, SOHC 2 Valve, Air Cooled, DTS-i
Displacement 149.5 cc
Maximum Speed 109 Kmph
Gear Box 5 Speed
Fuel Type Petrol

 

বাজারে এসে গেল বাজাজের নুতন বাইক ভি, বাজাজ ভি১৫০

BAJAJ V 150, বাজাজ ভি 150 অবশেষে এসে গেল



 বাজাজ মোটরসাইকেল আমাদের দেশে বেশ জনপ্রিয়। অন্যান্য দেশের তুলনায় আমাদের দেশে বাজাজ মোটরসাইকেলের দাম কিছুটা হেরফের হতে পারে। বাজাজ মোটরসাইকেল বাংলাদেশ এর প্রায় সব বড় শো-রুম গুলোতে পাওয়া যায়।

উত্তরা মোটরস লিমিটেড বাংলাদেশে বাজাজের একমাত্র পরিবেশক এবং আমদানীকারক। সম্প্রতি বাজাজ তাদের মোটরসাইকেলগুলোর দাম নির্ধারণ করেছে। চলুন দেখে আসি বাজাজ মোটরসাইকেলের সর্বশেষ দাম।

বাজাজ মোটরসাইকেলের দাম ২০১৭: বাজাজ মোটরসাইকেলের দাম ২০১৮:

বাজাজ মোটরসাইকেলের সর্বশেষ বাজারদর-

১। বাজাজ পালসার এএস ১৫০ সিসি = ২,৪১,৫০০/-
২। বাজাজ পালসার ১৫০ সিসি = ১,৯২,০০০/-
৩। বাজাজা ডিসকভার ১৫০ এফ = ১,৭৭,০০০/-
৪। বাজাজ ডিসকভার ১২৫ সিসি ডিস্ক = ১,৬৮,০০০/-
৫। বাজাজ ডিসকভার ১২৫ সিসি ড্রাম = ১,৫৬,৫০০/-
৬। বাজাজ ডিসকভার ১০০ সিসি = ১,৪৫,০০০/-
৭। বাজাজ প্লাটিনা ১০০ ইএস = ১,২৯,০০০/-
৮। বাজাজ প্লাটিনা ১০০ কেএস = ১,১৯,০০০/-
৯। বাজাজ সিটি ১০০ = ১,০৬,০০০/-

রেজিষ্ট্রেশন খরচ-

  1. 100 সি.সি. সরকারী জমা- 2 বছরের জন্য – 10,463/- টাকা, শুরুম নেয়- 14,000/- টাকা, 10 বছর – 19,663/- টাকা, শুরুম নেয়- 23,000/-।
  2. 125 সি.সি. সরকারী জমা- 2 বছরের জন্য – 12,073/- টাকা, শুরুম নেয়- 15,000/- টাকা, 10 বছর – 21,273/- টাকা, শুরুম নেয়- 24,000/-।

3. 150 সি.সি. সরকারী জমা- 2 বছরের জন্য – 12,073/- টাকা, শুরুম নেয়- 16,000/- টাকা, 10 বছর – 21,273/- টাকা, শুরুম

বাজাজ শোরুম

বাজাজ শোরুম ঢাকা

মোটরসাইকেলের দাম ২০১৭

বাজাজ পালসার ১৫০ অফিসিয়াল ওয়েবসাইট হলো https://www.bajajauto.com/motor-bikes/pulsar-150-dtsi । বাজাজ বাইক মডেলস নিউ দেখার জন্য চোখ রাখুন আমাদের সাইটে। বাজাজ নিউ বাইক কামিং সুন সম্পর্কে আপডেট তথ্য রয়েছে। বাজাজ এভেনজার বাইক বেশ জনপ্রিয়। বাজাজ স্কুটার এর চাহিদা আমাদের দেশেও আছে।

বাজাজ সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে বাজাজ উইকি তেও চোখ রাখতে পারেন। পালসার বাইক নিউ মডেল এখন বাজারে। বাজাজ অটো প্রাইস লিস্ট এই সাইট থেকে জেনে নিন। বাজাজ পালসার ১৫০ নিউ মডেল ২০১৭ এখন বাজারে। বাজাজ পালসার ১৮০ একটি জনপ্রিয় বাইক। পালসার ১৫০ প্রাইস ইন ইন্ডিয়া আমাদের দেশের চেয়ে কিছুটা ভিন্ন।

পালসার ১৫০ স্পেসিফিকেশন গুলো সাইট থেকে জানতে পারবেন। পালসার ১৫০ ব্ল্যাক বেশ সুন্দর একটি বাইক। পালসার প্রাইস লিস্ট সম্পর্কে সাইট থেকে জানুন। বাজাজ পালসার নিউ মডেল রয়েছে বেশ কিছু। বাজাজ পালসার ১৫০ মাইলেজ পার লিটার এ বেশ ভালো। বাজাজ পালসার বাইক অল মডেলস ই আকর্ষণীয় লু্কের। বাজাজ নিউ বাইক ৩০০সিসি এখন বাজারে।বাজাজের আরো একটি জনপ্রিয় বাইক পালসার বাইক ১৫০সিসি। বাজাজ পালসার ২২০ প্রাইস জানুন আমাদের সাইট থেকে।বাজাজের নতুন বাইক পালসার নিউ মডেল ৪০০সিসি।

বাজাজ আপকামিং বাইক ২০১৮ নিয়ে শীঘ্রয় হাজির হবো। নিউ বাজাজ বাইক লঞ্চড হতে চলেছে। বাজাজের আরো কিছু বাইক হলো বাজাজ এভেঞ্জার স্ট্রীট ১৫০ এবং বাজাজ এভেঞ্জার ক্রুজ ২২০। এভেঞ্জার বাইক প্রাইস ইন ইন্ডিয়া আমাদের দেশের চেয়ে কিছুটা ভিন্ন। বাজাজ এভেঞ্জারের আরো কিছু মডেল হলো বাজাজ এভেঞ্জার ১৮০, বাজাজ এভেঞ্জার ২২০।

বাজাজ এভেঞ্জার নিউ মডেল ২০১৬ সম্পর্কে তথ্য নিন আমাদের সাইট থেকে। বাজাজ স্কুটার ৪ স্ট্রোক আমাদের দেশেও বেশ জনপ্রিয়। বাজাজ স্কুটার মডিফাইড হয় হর হামেশাই। বাজাজ স্কুটার প্রাইস লিস্ট দেখুন আমাদের সাইটের প্রাইস লিস্টে। বাজাজ চেতক ২ স্ট্রোক বেশ জনপ্রিয় স্কুটার। বাজাজ চেতক ওল্ড মডেল গুলোও বেশ ভালো। বাজাজ চেতক পার্টস সহজলভ্য। বাজাজ চেতক স্কুটার কামিং এগেইন অর্থাৎ বাজাজ চেতককে আবারো ফিরে পাচ্ছি। বাজাজ গ্রুপ বেশ বড় একটি গ্রপ।

রাজিব বাজাজ বাজাজ অটোর এম ডি। বাজাজ কোম্পানি একটি শিল্প প্রতিষ্ঠান। বাজাজ লোগো টি বেশ সুন্দর। বাজাজ অটো লিমিটেড একটি বড় প্রতিষ্ঠান। রাহুল বাজাজ ফ্যামিলি ট্রি বাজাজ পরিবারের। শেখর বাবাজ ও বাজাজ পরিবারের সদস্য। বাজাজ অটো প্রাইস ইন ইন্ডিয়া আমাদের থেকে কিছুটা ভিন্ন।

Comments

comments

Join the discussion

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।