সেরা অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপস: অ্যান্ড্রয়েড মোবাইল ক্লিনার অ্যাপ

সেরা অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপস: অ্যান্ড্রয়েড মোবাইল ক্লিনার অ্যাপ

 অ্যান্ড্রয়েড মোবাইল ক্লিনার অ্যাপ (Cleaner app) ম্যালওয়ার ফ্রি এবং  এটি  একটি  সেরা অ্যান্ড্রয়েড  ক্লিনার অ্যাপ যার মাধ্যমে আপনি ফোনটির পারফমেন্স আরও বাড়াতে পারবেন  ।

%e0%a6%b8%e0%a7%87%e0%a6%b0%e0%a6%be-%e0%a6%85%e0%a7%8d%e0%a6%af%e0%a6%be%e0%a6%a8%e0%a7%8d%e0%a6%a1%e0%a7%8d%e0%a6%b0%e0%a6%af%e0%a6%bc%e0%a7%87%e0%a6%a1-%e0%a6%85%e0%a7%8d%e0%a6%af%e0%a6%be%e0%a6%aa

আপনার android ফোনে অনেক অ্যাপ ব্যবহার এর ফলে অনেক বাড়তি আরও কিছু অ্যাপ অটোমেটিক ইন্সটল হয়ে যায়। যে গুলো আপনার ফোনটির স্বাভাবিক দক্ষতা কমিয়ে ফোনটিকে করে দেয় স্লো ।এই ক্লিনার অ্যাপটি একটি টোটাল ফ্রি অ্যাপ। যা ব্যবহার করতে আপনার কোন প্রকার খরচ হবে না।

Installs এর পরিমানঃ

5,000,000 – 10,000,000

 কোথা থেকে ডাউনলোড করবেন? ক্লিক 

google-play-store-download-free

কেন সেরা অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপস-

কোন ঝামেলা ছাড়াই আপনি এই অ্যাপ টি ব্যবহার করতে পারবেন।

১। মেমোরি বুস্ট MEMORY BOOST

মেমোরি বুস্ট এর মাধ্যমে আপনার ফোনের র‍্যাম এর ফ্রী স্পেস বৃদ্ধি করে। ব্যাকগ্রাউন্ড এ রানিং টাস্ক গুলো বন্ধ করে ফোন এর স্পীড বৃদ্ধি করে। এই অ্যাপ টি ব্যবহার এর ফলে আপনার র‍্যাম পরিষ্কার রেখে আপনার ফোনের কর্মক্ষমতা আরও বাড়িয়ে দিবে।

এই ক্লিনার টি ব্যবহার এর ফলে আপনার র‍্যাম এর পারফরমেন্স সব সময় ভাল পাবেন ।

২। ফ্রী স্টোরেজ FREE UP STORAGE

সকল জাঙ্ক ফাইল গুলো খুজে খুজে এই অ্যাপ টি নিজেই তা পরিষ্কার করে আপনার ফোনটিকে রাখবে একদম ফ্রেস এবং ফোনের স্টোরেজ এর অবাঞ্চিত সকল প্রোগ্রাম মুছে দিয়ে এটি আপনার ফোনের স্টোরেজ এর জায়গা বাড়াবে।

আপনার ফোনের স্টোরেজ ফ্রী করতে জাঙ্ক ফাইলস যেমন- ক্যাচ ফাইলস সহ আপনার ডাউনলোডকৃত এপিকে (APK) ফাইল সমুহ ডিলিট করে ফেলুন। এতে ফোন এ ফ্রী স্টোরেজ বৃদ্ধি পায়।

৩। গেম বুস্টার GAME BOOSTER

ব্যাকগ্রাউন্ড টাস্ক কিল করার মাধ্যমে গেম খেলার স্পীড ও পারফোমেন্স বৃদ্ধি করা সম্ভব। ম্যাক্সিমাম গেম খেলার পর যে সকল অবাঞ্চিত জাঙ্ক ফাইল থেকে যায় স্টোরেজে সে গুলো নির্মুল করে আপনার ফোনকে রাখে একদম ফ্রেস ।

এন্ড্রয়েড ফোন মানেই গেমিং এ হেব্বি মজা। কে না চায় তার ফোনটি হোক হাই স্পীড গেমিং ফোন। কিন্তু অনেক সময় এই সব অবাঞ্চিত বাড়তি ডাটার কারনে আপনার স্টোরেজ অযথা ফিল আপ হতে থাকে। ফলে ফোন টি হয়ে যায় স্লো । তখন আর ফোন টি আগের মত রান করে না।

৪। স্মার্ট অ্যাপ ম্যানেজারঃ SMART APP MANAGER

এর সাহায্যে আপনি খুব সহজেই অব্যবহৃত অ্যাপস গুলো আন-ইন্সটল করতে পারবেন। এই অ্যাপটির ব্যাকগ্রাউন্ড আপনি আরও অনেক অ্যাপ ইউস করতে পারবেন।

ইন্টারনেট এ ওয়েবসাইট এ কাজ করার সময়ই, অনেক অযথা ফাইল চলে আসে আপনার ফোনে কোন প্রকার পারমিশন ছাড়াই। যে গুলো আপনার ফোনটিকে স্লো করে এবং আপনার ফোন স্টোরেজ অযথা দখল করে রাখে। এই গুলো থেকে আপনি খুব সহজেই এন্ড্রয়েড এর জন্য তৈরি এই ক্লিয়ার অ্যাপটি ব্যবহার করে থাকতে পারেন নিশ্চিন্ত।

৫। প্রাইভেসি কন্ট্রোলঃ CONTROL YOUR PRIVACY

ফোনে এমন কিছু অ্যাপস রয়েছে, যেগুলো বিভিন্ন অনাকাঙ্ক্ষিত পারমিশন (যেমন- কল, এসএমএস, লোকেশন, ক্যামেরা এবং কন্ট্যাক্টস) দিয়ে থাকে। সেগুলো আন-ইন্সটল করে ফেলুন।

৬। অ্যাপ প্রটেক্টরঃ APP PROTECTOR

একটি গোপন পিন এর দ্বারা অ্যাপ লকার ব্যবহার করে আপনার ফোনের নিরাপত্তা ঠিক রাখুন।

৭। ওইজেট (widget):

হোম স্ক্রিন এ একটি ওইজেট ব্যবহার করে কুইক বুস্ট করে ফোনের পারফোমেন্স বৃদ্ধি করুন।

৮। শিডিউল মেইন্ট্যানেন্সঃ SCHEDULED MAINTENANCE

আপনার ডিভাইস এর চেকিং মেইন্ট্যানেন্স অটোমেটিক শিডিউল করে ডিভাইস এর কার্যক্ষমতা ঠিক রাখুন।

৯। থিমসঃ THEMES

নতুন থিম এর দ্বারা আপনার ডিভাইসটি সাজিয়ে নিতে পারেন।

The Cleaner – Speed up & Clean  ক্লিনার অ্যাপ সম্পর্কিত

এই অ্যাপটি একটি এমন অ্যাপ যা ইন্সটলের মাধ্যমে আপনার ফোনের সকল অবাঞ্চিত ফাইল গুলো মুছে ফেলতে পারবেন। এর মধ্যে সরাসরি জিইউআই ব্যবহার করা হয়ে থাকে যার ফলে আপনি এটি সহজেই আপনার ফোনে ইন্সটল করতে পারবেন।

%e0%a6%85%e0%a7%8d%e0%a6%af%e0%a6%be%e0%a6%a8%e0%a7%8d%e0%a6%a1%e0%a7%8d%e0%a6%b0%e0%a6%af%e0%a6%bc%e0%a7%87%e0%a6%a1-%e0%a6%9f%e0%a6%bf%e0%a6%aa%e0%a6%b8

ডিলিট  করুন অ-দরকারী কল বা এস এম এস

এটি ব্যবহার এর ফলে আপানার ফোনের অদরকারী ফোন কল বা এস এম এস অটোমেটিক ডিলিট হয়ে যাবে আপনার স্টোরেজ থেকে।

এছাড়াও এটি আপনার  ফোনের সিকিউরিটি হিসেবে কাজ করবে।

এই অ্যাপটি আপনার স্টোরেজ এর অত্যন্ত কম যায়গা দখল করে। বিনিময়ে আপনাকে দেয় অনেক রিলেক্সেবল ফোন সার্ভিস।

 কিন্তু আপনি যদি একটি ফ্রী ক্লিনার অ্যাপ ব্যবহার করেন তবে আপনার ফোনটি অনেক পুরনো হওয়া সত্তেও তার কার্যকারিতা আগের মতই থাকবে। গ্রাহকের কাছে তখন তার ফোনটি কোন প্রকার কোন ঝামেলা ছাড়াই হয়ে উঠবে আরও প্রিয়।

এই অ্যাপটি কেন বেস্ট ?

এই অ্যাপটি ফোনের  সাধারনত ৫৪০ এমবি ক্লিন করার ক্ষমতা রাখে এক সাথে। অবশ্যই এটি আপনার পারমিশন ছাড়া কখনই কিছু ডিলিট করবে না। আপনাকে নোটিফিকেশন দিয়ে তারপর সে একশন নিবে। এই অ্যাপটি এক্সটারনাল মেমরির ১৩০-১৮০ এমবি ক্লিন করতে সক্ষম হয় একবারে।

কিছু গেম আছে যা আপনাকে অননেট থেকে খেলতে হয়। যেমন- ক্ল্যাশ অফ ক্ল্যান বা এই ধরনের আরও বহুবিধ আছে। এই গেম গুলো যখন নেট এ রান হয় তখন নেট থেকে  বিভিন্ন অবাঞ্চিত বা অদরকারি এড বা আপ্লিকেশন স্তরে অটোমেটিক স্টোরে জমা হতে থাকে।

আরও পড়তে পারেন 

অ্যান্ড্রয়েড রুট কি : রুট করার সুবিধা এবং অসুবিধা

এগুলো ফোনের পারফরমেন্স ডাউন করতে থাকে। এগুলো এই অ্যাপটির মাধ্যমে আপনি সব সময় র‍্যাম পরিষ্কার করে রাখতে পারবেন।

 অনেক সময় আপনার ফোনের বাড়তি অ্যাপ গুলো ডিলিট করার মনে থাকে না । আপনি ভুলে গেলেও ভুলবেনা আপনার অ্যাপটি। অ্যাপটি নিজে নিজে সকল ঝামেলার ফাইল গুলো খুজে বের করে আপনাকে নোটিশ করবে, আপনি পারমিশন দেয়ার সাথে সাথে সে তার একশন শুরু করে দিবে। এই অ্যাপ বয়ে আনবে একটি রিলেক্সেবল লাইফ ।

 এই অ্যাপটি ইন্সটল থেকে শুরু করে কিভাবে কি করতে হবে ইন্সট্রাকশন দেয়া আছে এখানে। এই ধরনের একটি অ্যাপ আপনার জন্য অবশ্যই জরুরি যদি আপনি একটি এন্ড্রয়েড চালিয়ে থাকেন এবং যদি ফোনটি হয় আপনার অনেক প্রিয়। আপনার ফোনটি আপনার কাছে চিরদিন নতুনের মতই রাখবে এই অ্যাপটি ।

আসলে এই অ্যাপটি খুবই জরুরি যদি আপনি আপনার ফোনের হাই পারফরমেন্স চান। কারন হাই পারফমেন্স তখনি করবে যখন আপনার ফোনটি ভাইরাস মুক্ত থাকবে। স্টোরেজ যথেষ্ট পরিমান খালি থাকবে, কোন অবাঞ্চিত ফাইল না থাকলে ইত্যাদি।

আসলে এখন সারাদিনের বিভিন্ন কাজের শেষে অনেকেরই এই সব খুজে খুজে এই সব করতে মন চায় না। কিন্তু আপনি যদি এমন একটি ক্লিনার অ্যাপ ইন্সটল করে রাখেন তবে আপনার ফোনের সেফটি নিয়ে আপনার কোন টেনসন-ই করতে লাগবে না। আপনি শুধু ইন্সটল করে রেখে দিবেন, ব্যাস। এর কিছু-ই করতে হবে না আপনাকে।

যা করার সব ক্লিনার-ই করবে। শুধু মাঝে মাঝে নোটিফিকেশন এলে সেগুল আপনাকে ভাল করে চেক করে কমান্ড করে দিলেই একশন শুরু। সকল অবাঞ্চিত ফাইল, ডাটা, ভাইরাস এগুলো মুছে আপনার ফোন কে রাখবে আরও সুরক্ষিত। আপনার ফোনটি হবে গেমিং একটি হাই পারফর্মেন্স দেয়া একটি ফোন।

আপনার সবচেয়ে দরকারি একটি বস্তু যদি সেইটি হয় স্লো, তবে নিশ্চয়ই আপনার ভাল লাগবে না। তাই আপনার ফোনের সর্বোচ্চ কর্মদক্ষতা পেতে এই অ্যাপটি ইন্সটল করে আপনিও পেতে পারেন রিলেক্সেবল একটি ফোন।

ধন্যবাদ আমাদের সাথে থাকার জন্য ।

 

Comments

comments

Join the discussion

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।